শনিবার | ১৮ই সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৩রা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম

চুনারুঘাটে ছেলেকে লুকিয়ে পিতার অপহরণ মামলা, দেড় বছর পর ভিকটিম উদ্ধার

প্রকাশিত :
কাজী মাহমুদুল হক সুজন, হবিগঞ্জ থেকে :  ছেলেকে লুকিয়ে অপর পক্ষের বিরুদ্ধে অপহরণ মামলা করার দেড় বছর পর সাজানো নাটকের অবসান হয়েছে। হবিগঞ্জ পুলিশ সুপার মোহাম্মাদ উল্ল্যা (বিপিএম-পিপিএম) এর তত্ত্বাবধানে চুনারুঘাট থানার অফিসার ইনচার্জ ( ওসি) শেখ নাজমুল হকের নেতৃত্বে সত্য উদঘাটিত হয়। গতরাত ২৪ জুলাই ( শুক্রবার) ভিকটিম তোফাজ্জল ইসলাম (১১)কে গাজীপুর জেলার শ্রীপুর থানার কেওয়া মাওয়া এলাকা থেকে থানার এসআই মুসলিম উদ্দিনের নেতৃত্বে একদল পুলিশ তাকে উদ্ধার করে। সে শ্রমিকের কাজ করত বলে পুলিশকে জানায়।পুলিশ জানায়, গত বছরের ৩০ শে জানুয়ারি চুনারুঘাট উপজেলার গাজীপুর ইউনিয়নের বাগিয়ারগাঁও গ্রামের আব্দুল জলিলের পুত্র মোঃ ওয়াহিদ মিয়া তার ১১ বছরের ছেলে তোফাজ্জল ইসলামকে একই গ্রামের রমিজ আলীগংরা অপহরণ করেছে এমন অভিযোগে হবিগঞ্জ নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালে অভিযোগ দায়ের করেন। বিজ্ঞ আদালত অভিযোগ আমলে নিয়ে চুনারুঘাট থানাকে তদন্তের নির্দেশ দেন। পুলিশ সুপার মোহাম্মদ উল্যাহ (বিপিএম- পিপিএম) এর নির্দেশে ও নিবিড় তত্ত্বাবধানে এবং অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আনোয়ার হোসেনের প্রত্যক্ষ সুপারভিশনে চুনারুঘাট থানা পুলিশ মামলাটির রহস্য উদঘাটন করতে সক্ষম হয়েছে। পুলিশ জানিয়েছে, প্রতিপক্ষকে ফাঁসাতে পুত্রকে লুকিয়ে পিতার অপহরণ নাটকের যবনিকাপাত করতে সক্ষম হয়েছে চুনারুঘাট থানা পুলিশ। চুনারুঘাট থানার ওসি (তদন্ত) চম্পক ধাম জানান, ভিকটিমকে উদ্ধার করে পুলিশ হেফাজতে রাখা হয়েছে। রহস্য উদঘাটনে পুলিশ কাজ করছে।

 

আজকের সর্বশেষ সব খবর