মঙ্গলবার | ২৭শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১২ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম

নবীগঞ্জে লন্ডন প্রবাসীর রাস্তা বন্ধ করে দিয়েছে দুর্বৃত্তরা

প্রকাশিত :

স্টাফ রিপোর্টার॥ হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ উপজেলার সদরঘাট গ্রামের ছানু মিয়া নামে এক লন্ডন প্রবাসীর বাড়ীর রাস্তা বন্ধ এবং জোরপূর্বক জমি দখল করে বাউন্ডারী নির্মাণ করে দিয়েছে দুর্বৃত্তরা। এ ব্যাপারে আদালতে মামলা ও পুলিশ সুপার বরাবর অভিযোগ দেওয়া হয়েছে।
অভিযোগে জানা যায়, দেবপাড়া গ্রামের মৃত হাজী আব্দুল বারীর ছেলে লন্ডন প্রবাসী ছানু মিয়ার সাথে তার আত্মীয় লাল মিয়ার পারিবারিক সম্পত্তি এখনও ভাগ বাটোয়ারা হয়নি। দীর্ঘদিন যাবৎ মৌখিকভাবে জমি সনাক্ত করে তারা বসবাস ও ভোগদখল করে আসছেন। সম্প্রতি ছানু মিয়া যাতে বাড়ী থেকে বের হতে না পারে তার জন্য লাল মিয়া জোরপূর্বক তার চলাচলের রাস্তা বন্ধ করে দেয়ার চেষ্টা করেন।

এ ব্যাপারে ছানু মিয়ার পক্ষে তার কেয়ার টেকার আব্দুল বাতির আদালতে ১৪৭ ধারায় মামলা দায়ের করেন। কিন্তু সেই মামলা থাকার পরও লাল মিয়ার ছেলে লাটিয়াল ও প্রভাবশালী নেতাকে হাত করে জোর পূর্বক রাস্তা বন্ধ করে বাউন্ডারী দেয়ার চেষ্টা করলে ছানু মিয়ার কেয়ারটেকার বাতিরমিয়াসহ মুরুব্বীয়ানরা বাধা প্রদান করলে জমশেদ মিয়া লাঠিয়াল বাহিনী দিয়ে বাতির মিয়াকে বেদড়ক মারপিট করো গুরুতর জখম করে।

এ ব্যাপারে বাতির মিয়া জমশেদ মিয়া এবং তার দুই লাটিয়াল সদরঘাট গ্রামের মৃত মজুত উল্লার ছেলে মাহমুদ আলী ও বনগাও গ্রামের ছবুর মিয়ার ছেলে নোমান মিয়াকে আসামী করে আদালতে মামলা দায়ের করে। ছানু মিয়ার জোরপূর্বক রাস্তা বন্ধ ও বাউন্ডারী নির্মাণ করা ছানু মিয়ার বাড়ীকে বিচ্ছিন্ন করে দেয়ার চেষ্টার অভিযোগে গত ৯ জুলাই ছানু মিয়ার পক্ষে বাতির মিয়া পুলিশ সুপার বরাবর অভিযোগ দায়ের করেন। পরে নবীগঞ্জ থানার ওসিকে বিষয়টি নিস্পত্তির নির্দেশ দিলে ওসি ডালিম আহমেদ ঘটনাস্থলে গিয়ে উভয়পক্ষকে স্থিতাবস্থায় থাকার নির্দেশ দেন এবং বিষয়টি আপোষ নিস্পত্তির চেষ্টা করেন।

কিন্তু ওসি চলে আসার পর পুনরায় জমশেদ মিয়া প্রভাবশালী এক নেতাকে ম্যানেজ করে লাঠিয়াল বাহিনী দিয়ে ছানু মিয়ার পুরাতন গেইট ভেঙ্গে রাস্তা বন্ধ করে দেয়াল নির্মাণ করে।
এ ব্যাপারে লন্ডন প্রবাসী ছানু মিয়া বলেন,  জমশেদ মিয়া ও তার লাঠিয়াল বাহিনী আমার কেয়ারটেকারকে মারপিট করে জোরে রাস্তা বন্ধ করে বাউন্ডারী নির্মাণ করেছে। এখন পুকুরও ভরাট করার চেষ্টা করছে। এখনও জমিগুলোর বাটোয়ারা হয়নি। তিনি ন্যায় বিচারের স্বার্থে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেন।

তিনি আরও বলেন, জমশেদ মিয়ার লোকজন আমার লোকজনক মারপিট করেছে। তার এই অপকর্মের জন্য আমার আত্মীয়-স্বজনও উত্তেজিত অবস্থায় আছে। আমি তাদেরকে আইন হাতে তুলে না নেয়ার জন্য নির্দেশ দেয়ায় তারা ধৈর্য্য ধরেছেন। প্রবাসী হিসাবে যদি এভাবে হয়রানীর শিকার হতে হয় তাহলে প্রবাসীরা এবং তাদের প্রজন্ম দেশের প্রতি আগ্রহ হারাবেন।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত জমশেদ মিয়ার সাথে যোগাযোগ করার চেষ্টা করা হলে তিনি ফোন রিসিভ করেননি।
এ ব্যাপারে নবীগঞ্জ থানার ওসি ডালিম আহমেদ এর সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, বিষয়টি স্থানীয়ভাবে আপোষের চেষ্টা করা হয়েছে। ছানু মিয়া লন্ডনে থাকায় মিমাংশা করা সম্ভব হয়নি।

আজকের সর্বশেষ সব খবর